Wednesday , September 20 2017
শিরোনাম
You are here: Home / অপরাধ / নবীনগরে প্রাথমিক বিদ্যালয় উন্নয়ন প্রকল্পের পুরো টাকা আত্মসাৎ

নবীনগরে প্রাথমিক বিদ্যালয় উন্নয়ন প্রকল্পের পুরো টাকা আত্মসাৎ

নবীনগরে প্রাথমিক বিদ্যালয় উন্নয়ন প্রকল্পের পুরো টাকা আত্মসাৎ
নবীনগর (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর পৌর এলাকার ৬ নং ওয়ার্ডের জল্লা বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় উন্নয়য়ন কাজের জন্য ২০১৬-২০১৭ অর্থ বছরের গ্রামীন রক্ষণা বেক্ষণ কর্মসূচির আওতায় ১ লাখ ৭৪ হাজার টাকার প্রথম চেক ৮৭ হাজার  এবং ২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরের ৭২ হাজার টাকাসহ পুরো ২,৩৩,৫২৮ টাকা সূক্ষ্ম কারচুপি ও স্বাক্ষর জ্বালিয়াতির মাধ্যমে আত্মসাৎ করেছেন ওই ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মো. রমজান আলী।
ওই ওয়ার্ডের বাসিন্দা মো. নিয়াজ উদ্দিন পিতা জসীম উদ্দিন ও তাজুল ইসলাম পিতা ফিরোজ মিয়া এ অভিযোগ আনেন। বৃহস্পতিবার  বিকেলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবরে লিখিত এ অভিযোগ করেন তারা। স্থানীয়রা জানায়,ওই কাউন্সিলর বরাদ্দের টাকা দিয়ে স্কুলের কোনরূপ উন্নয়ন কাজ করে নাই। ওই স্কুলের নামে সরকারি টাকা বরাদ্দ হয়েছে তাও প্রকল্পের কমিটির লোকজন জানেন না। সূক্ষ্ম কারচুপির মাধ্যমে ওয়ার্ডের মানিক মিয়ার দোকানের পাশে সোলার প্যানেল নির্মান কাজের কথা বলে প্রকল্পের সেক্রেটারি করা হয়েছে জানিয়ে নিয়াজ উদ্দিনের কাজ থেকে স্বাক্ষর নেয়। সরল বিশ্বাসে নিয়াজ উদ্দিন প্রকল্পের কাগজগুলোর উপরের  একটি কাগজ সোলার প্যানেলের দেখেই বাকি কাগজ না দেখে স্বাক্ষর দেন। এবং কমিটির আরেক সদস্য তাজুল ইসলামের স্বাক্ষরও জাল করে নেয় ওই কাউন্সিলর। বিষয়টি নিয়ে এলাকায় সাধারণ মানুষ ক্ষোভ প্রকাশ করেন।
এ ব্যাপারে অভিযুক্ত কাউন্সিল রমজান আলী তার বিরুদ্ধে মিথ্যা ভিত্তিহীন অভিযোগ আনা হয়েছে দাবি করে বলেন, আমার বিরোধী পক্ষ ষড়যন্ত্রমূলকভাবে আমাকে ফাঁসানোর চেষ্টা করছে।
এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সালেহীন তানভীর গাজী বলেন,অভিযোগ পেয়েছি,এটি গুরুত্বসহকারে নেয়া হয়েছে, প্রকল্প কর্মকর্তাকে তদন্ত করে দ্রুত প্রতিবেদন দেওয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে, দোষী সাবস্ত হলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

About admin

Comments are closed.

Scroll To Top